Wednesday, 17 January 2018

এণকাউণ্টার যোগী; উত্তরপ্রদেশকে অপরাধীমুক্ত করতে শুরু করেছেন এক গেরুয়া ধর্মযুদ্ধ ।

ওয়েব ডেস্ক, ১৭ই জানুয়ারী :- কথিত অর্থে যোগী বলতে আমরা বুঝি সর্বত্যাগী এক ব্যক্তি। সাধরণ মনুষের ছটি রিপুকে একত্রে বলা হয় ষড়রিপু, এগুলো ত্যাগ করা ব্যক্তিই একজন আদর্শ যোগী হতে পারেন। কিন্তু ভারতের উত্তরপ্রদেশের ছবি সেকথা বলছে না । গত বছরের মার্চের ভোটে সেখানে গদি বদল হয়। মুখ্যমন্ত্রী বদলে অখিলেশের জায়গায় আসেন যোগী আদিত্যনাথ এবং শুরু হয় উত্তরপ্রদেশে নতুন সরকারের দিন।


যোগী সরকার প্রতিশ্রুতি দেয় যে তারা নাকি তাঁদের রাজ্য থেকে জঞ্জাল পরিষ্কার করবেন। না এ জঞ্জাল ময়লা আবর্জনা নয়; বরং পরিষ্কার করবেন তারা সেই সব মানুষদের তাঁদের রাজ্য থেকে, যাঁরা "বিখ্যাত" অথবা "কুখ্যাত" ও গ্যাংস্টার নামে সুপরিচিত । 

এই সরকার ক্ষমতায় আসার ১০ মাসের মধ্যেই "দ্যা হিউম্যান রাইটস্ আ্যান্ড কমিশন" সরকারের দরজায় ৯টা চিঠি পাঠিয়েছে । কিন্তু এতে দমে যায়নি সরকার । তাদের সঙ্গে রোজই মোকাবিলা হচ্ছে সেই সব অপরাধীদের যাদের জন্যে বিভিন্ন ভাবে বিঘ্নিত হয় সাধরণ মানুষের সুখ , শান্তি ও সাম্য । উত্তরপ্রদেশ পুলিশ রোজই এই সব গ্যাংস্টারদের সাথে মোকাবিলায় নামে। 

রিপোর্ট অনুযায়ী যোগী সরকার ক্ষমতায় আসার পর রাজ্যেকে সম্মুক্ষীন হতে হয়েছে  প্রায় ৯২০ টি শুট আউটের। যার মধ্যে ১৯৬ আহতই কিন্তু ক্রিমিনাল । কিন্তু দুঃখ জনক বিষয়টি হচ্ছে যে এঁদের মধ্যে রয়েছেন রাজ্যের ২১২ জন আহত পুলিশকর্মী  ও ৪জনের মৃত্যূ হয়েছে । এই কঠোর নীতি কতটা মানবিক সেই নিয়ে প্রশ্ন থাকলেও আশা করা যায় যে যোগী সরকার হয়তো পারবেন তাঁদের রাজ্যকে অপরিষ্কার নয়, এক পরিষ্কার অপরাধমুক্ত রাজ্য হিসেবে তুলে ধরতে।



No comments:

Post a Comment

loading...