Friday, 12 January 2018

রাজপথে রক্তাক্ত বিজেপি, হাইকোর্টের হুঁশিয়ারি রাজ্য প্রশাসনকে

ওয়েব ডেস্ক, ১২ই জানুয়ারী :-  আজ সকালে স্বামী বিবেকানন্দের জন্মদিন ও বিজেপির প্রতিরোধ সংকল্প অভিযান উপলক্ষে একটি বাইক মিছিল আয়োজন করেছিল বিজেপি যুবমোর্চা। কিন্তু সেই মিছিল তৃণমূল-বিজেপি সংঘর্ষে রণক্ষেত্রের চেহারা নিল উত্তর কলকাতার জোড়াবাগান এলাকা ৷ এই ঘটনায় চার বিজেপি কর্মী গুরুতর আহত হয়েছেন৷ ঘটনাস্থলে গিয়েছেন স্থানীয় বিধায়ক শশী পাঁজা৷ ঘটনার পর প্রায় অবরুদ্ধ হয়ে পড়েছে গোটা সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ ৷ এরপর বিজেপি নেতৃত্ব মিছিল বন্ধ রেখে ধর্ণা শুরু করে৷ আহত হন যুব মোর্চার রাজ্য সভাপতি দেবজিৎ সরকার ও যুব মোর্চার রাজ্য সম্পাদিকা সীমা সিং। এছাড়া বেশ কয়েকজন বিজেপি সমর্থক গুরুতর জখম অবস্থায় আর জি কর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়৷

এদিকে যুব মোর্চার বাইক মিছিলকে নিরাপত্তা দিতে পুলিশি ব্যর্থতার জন্য ফের একবার হাইকোর্টের তোপের মুখে রাজ্য সরকার। আজ বিজেপির মিছিলের উপর হামলা চালানোর পর রণক্ষেত্রের চেহারা নেয় সেন্ট্রাল এভিনিউ। তারপরই আজকের মতো এই মিছিল স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিয়ে হাইকোর্টের ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির কাছে অভিযোগ করে রাজ্য বিজেপি। তাদের অভিযোগ, যুব মোর্চার মিছিলকে সুরক্ষা দিতে পারেনি পুলিশ। 

গেরুয়া শিবিরের নালিশ শোনার পর বিচারপতি মন্তব্য করেন, রাজ্য প্রশাসন যদি আইনশৃঙ্খলা রক্ষা করতে ব্যর্থ হয় তবে বিকল্প ব্যবস্থার কথা ভাবতে হবে। একই সঙ্গে রাজ্যের শীর্ষ আদালত এদিন জানায়, আজ মিছিল বন্ধ রেখে শনিবার রোডম্যাপ জমা দেওয়া হোক। এরপরও যদি আইনশৃঙ্খলা রক্ষা করতে রাজ্য সরকার ব্যর্থ হয় তবে বিকল্প ব্যবস্থার কথা ভাবতেই হবে। অন্যদিকে পুরো ঘটনাটি রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠীকেও জানিয়েছেন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। অন্যদিকে এই ঘটনার সম্পূর্ণ রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছেন বিজেপির সর্ব ভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। 


No comments:

Post a Comment

loading...