Sunday, 15 April 2018

'তৃণমূল কর্মীরা নিজেদের বাবাকে বাবা বলে না ডেকে পাশের বাড়ির কাকাকে বাবা বলে ডাকে'- সুভ্রানসু রায়

ওয়েব ডেস্ক, ১৫ই এপ্রিল :-  তৃণমূল কংগ্রেসের বীজপুরের বিধায়ক তথা একসময়ের তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কম্যান্ড এবং বর্তমানে বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের ছেলে গত কাল একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন। তিনি বলেন ‘দলীয় কর্মীরা নিজেদের বাবা থাকতেও তাকে বাবা বলে না ডেকে পাশের বাড়ির কাকাকে বাবা বলে ডাকতে বেশি পছন্দ করে ।’ তার এই মন্তব্যের পর রাজনৈতিক মহলে তীব্র বিতর্ক উঠতে শুরু করেছে। অনেকের মতে তার এই মন্তব্য তৃণমূলের গোষ্ঠীদন্দ্বকে ইঙ্গিত করে করা।



তৃনমূল কংগ্রেস দলের মধ্যেই দীর্ঘদিন কোনঠাসা উত্তর ২৪ পরগনার বীজপুরের তৃনমূল কংগ্রেস বিধায়ক তথা বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের পুত্র শুভ্রাংশু রায় । অধিকাংশ দলীয় অনুষ্ঠানেই গত কয়েকমাস তাকে দেখা যায়নি । এমনকি উত্তর ২৪ পরগনা জেলার বারাসাতে মুখ্যমন্ত্রীর প্রশাসনিক বৈঠকেও হাজির ছিলেন না বীজপুরের তৃনমূল বিধায়ক শুভ্রাংশু রায় । দীর্ঘ কয়েক মাস পর তার নিজের বিধানসভা বীজপুরে ড: বি আর আম্বেদকরের জন্মদিন পালনের অনুষ্ঠানে এসে কাঁচরাপাড়ার দলীয় তৃনমূল কর্মীদের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন স্থানীয় তৃনমূল বিধায়ক শুভ্রাংশু রায় ।

শুভ্রাংশু বলেন, ‘আমি বীজপুর অঞ্চলের বিধায়ক । ফলে দলীয় সংবিধান অনুযায়ী যে কোন বিধায়কই সেই বিধানসভার দলীয় চেয়ারম্যান হিসেবে নিযুক্ত । এক্ষেত্রে টাউন সভাপতির থেকে চেয়ারম্যান পদটি বড় । আর ড: বি আর আম্বেদকরের জন্মদিন পালনের অনুষ্ঠানটি কোনও দলীয় অনুষ্ঠান নয় । দলনেত্রীর নির্দেশ রয়েছে দলীয় বিধায়করা নিজ নিজ এলাকায় অরাজনৈতিক অনুষ্ঠান করতেই পারেন, তবে সেক্ষেত্রে কাউকে শাসিয়ে বা ভয় দেখিয়ে তোলাবাজি না করলেই হল । আমি আমার বিধানসভা অঞ্চলে এই অনুষ্ঠান করছি । স্থানীয় দলীয় কর্মীদের উদ্দেশ্যে বলব, এলাকায় স্থানীয় একটি স্কুলের স্বাস্থ্য শিবিরে আমি ডাক পাইনা । অথচ আমি স্থানীয় বিধায়ক এবং ওই স্কুলের প্রাক্তন ছাত্র । যোগ্যতার দিক দিয়ে আশেপাশে যত বিধায়ক আছে, অমিত মিত্র বাদ দিয়ে কেউ আমার ধারে কাছে নেই । আমার বিরুদ্ধে কোন ক্রিমিনাল কেস নেই । শিক্ষার মান যদি বোমা তৈরী করতে পারা বিচার্য হয় তবে আমি সেই দলে নেই । তবে সব কিছুই সবাইকে শিখে রাখা উচিত । এখন যারা এই অঞ্চলে আসছে দলীয় কর্মীরা মনে করছে তাদের দিয়ে উন্নয়ন বেশি হবে ।’

এরপরই তিনি বিস্ফোরক মন্তব্য করেন ‘দলীয় কর্মীরা নিজেদের বাবা থাকতেও তাকে বাবা বলে না ডেকে পাশের বাড়ির কাকাকে বাবা বলে ডাকতে বেশি পছন্দ করে ।’ তৃণমূলের সমর্থকরা তার এই মন্তব্যকে অশালীন ও অসম্মানজনক বলে মন্তব্য করেন। এই আলগা মন্ত্যব্যের জেরে সোশ্যাল মিডিয়ায় তৃণমূল সমর্থকেরা তীব্র ক্ষোভ ব্যক্ত করেছেন।




No comments:

Post a Comment

loading...