Saturday, 26 May 2018

মমতার প্রসংশায় পঞ্চমুখ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওয়াজেদে

ওয়েব ডেস্ক ২৬শে মে ২০১৮: সকাল থেকেই আসানসোলের কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সেজে উঠেছিল ।হাজার হোক বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আসবেন বলে কথা ।সেই মতো সংবর্ধনাও ছিল দেখার মতো , এহেন ব্যবস্থায় এবং ডিলিট সম্মানে  আপ্লুত শেখ হাসিনা ওয়াজেদ ।সেই সঙ্গে রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠি ,মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় , শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন "আমি সম্মানিত বোধ করছি। এখানে আসতে পেরে নিজেকে গর্বিত মনে করছি।
 দিনটা আমার কাছে ভীষণই তাৎপর্যের।’" এরপরই মমতাকে ধন্যবাদ জানিয়ে হাসিনা বলেন, ‘"কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করার জন্য মমতা ব্যানার্জিকে ধন্যবাদ জানাই। নজরুল ইসলামের জন্মস্থান চুরুলিয়ার সংস্কার করেছেন মমতা ব্যানার্জি।"
 এতো কিছুর মধ্যেও ১৯৭১ সালে ভারতের যে অবদান বাংলাদেশের প্রতি আছে সেটা বলতে ভুললেন , ভারতের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী বলেন, "মুক্তিযুদ্ধের সময় ভারতবাসী আমাদের পাশে ছিলেন। তারা অনেক ত্যাগ স্বীকার করেছেন। এই ভারতবর্ষে সবসময় গণতান্ত্রিক ধারা ছিল। আমাদের ছিল না। ভারতবর্ষের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। ভারত–বাংলাদেশ বন্ধুত্ব দীর্ঘজীবী হোক।"



তথ্য সূত্র  আজ কাল 

No comments:

Post a Comment

loading...