Thursday, 5 July 2018

রাষ্ট্র বিজ্ঞানের বইয়ে থেকে গোধরা কান্ড বাদ চায় বিজেপি শাসিত মধ্য প্রদেশ সরকার

ওয়েব ডেস্ক ৫ই জুলাই ২০১৮ :এবার এন.সি.ই.আর.টির বইয়ে সংশোধন আনার জন্য ,কেন্দ্রীয় মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রীর কাছে চিঠি লিখল মধ্যপ্রদেশ সরকার। সূত্রের খবর দ্বাদশ শ্রেণীর  রাষ্ট্রবিজ্ঞানের বইয়ে স্বাধীন ভারতের রাজনীতি’‌ এই অধ্যায়টি সংশোধন করতে চেয়ে খোদ মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী চিঠি দিয়েছেন কেন্দ্রীয় মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রীর কাছে । কি এমন আছে সেই অধ্যায়ে ?
সূত্রের খবর অনুসারে , সেই বইতে বলা হয়েছে বিজেপি এমন একটি দল, যারা হিন্দুত্বকে প্রচার করে। এছাড়াও এই অধ্যায়ে ২০০২ সালে গোধরা দাঙ্গার কথা অতি রঞ্জিত করে ব্যাখ্যা করা হয়েছে ।




এমনকী, গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালিন নরেন্দ্র মোদিকে তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারি বাজপেয়ি ‘‌রাজ–ধর্ম অনুসরণ’‌ করার কথা বলেছিলেন। এ ধরনের বিতর্কিত অধ্যায় বই থেকে বাদ দিতে বদ্ধপরিকর  মধ্যপ্রদেশ সরকার।বিজেপির একাংশের প্রশ্ন কে ,বা করা এধরণের অধ্যায় বইয়ের মধ্যে ঢোকালো , এবং কার আস্কারায় ? তাদের আরো প্রশ্ন , শিশু মনে এধরণের বিতর্কিত ব্যাপার গুলো কেন ঢোকানো হচ্ছে ? শিক্ষামন্ত্রী দীপক যোশি বলেন, ‘‌আমরা মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকে চিঠি দিয়ে বিষয়ট জানিয়েছি এবং এনসিইআরটিকেও বলেছি বইয়ের বিতর্কিত অংশগুলি সংশোধন করতে।’‌ প্রসঙ্গত সিবিএসইর অন্তর্গত ইংরেজি মাধ্যম স্কুলে এন.সি.ই.আর.টির বই পোড়ানো হয় সেখানে পরিষ্কার বলা হয়েছে ,গোধরা হত্যা কাণ্ডের পর নরেন্দ্র মোদী গুজরাটে জয়লাভ করেন ,শুধু তাই নয় , এ কোথাও বলা আছে ,এর পরেই নাকি নরেন্দ্র মোদিকে রাজ্ ধর্মের কথা মনে করিয়ে দেন শ্রী অটল বেহারী বাজপেয়ী।কংগ্রেসের তরফ থেকে টিপ্পনি কেটে বলা হয়েছে , বিজেপি যেন সত্যিটা কে যেন মেনে নেয় । 

No comments:

Post a Comment

loading...