Saturday, 15 September 2018

মমতার উন্নয়নে অনুপ্রাণিত হয়ে তৃণমূলে যোগদান করলেন বিজেপি সদস্যা, পঞ্চায়েত তৃণমূলের

ওয়েব ডেস্ক ১৫ই সেপ্টেম্বর ২০১৮:আরো একটি গ্রাম পঞ্চায়েত এলো তৃণমূলের দখলে।যত সময় যাচ্ছে একেরপর এক বিরোধী জয়ী প্রাথীরা নিজেদের ইচ্ছাতে তৃণমূলে যোগদান করছেন । বিজেপি–র এক গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যা তৃণমূলে যোগদান করতেই পুরুলিয়ার ২ নং ব্লকের আগোয়া নড়রা গ্রাম পঞ্চায়েত দখল করল তৃণমূল।


বৃহস্পতিবার রাতে বিজেপি–র সদস্যা বন্দনা মাহাতো মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি উন্নয়নের কাজে শামিল হতে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দেন। দলের জেলা সভাপতি মন্ত্রী শান্তিরাম মাহাতো তাঁর হাতে দলের পতাকা তুলে দেন। যোগদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দলের সহ–সভাপতি রথীন্দ্র মাহাতো, জেলা পরিষদের দলনেতা হলধর মাহাতো। আগোয়া নড়রা গ্রাম পঞ্চায়েত ১১ আসন। এর মধ্যে তৃণমূল পায় ৫টি এবং বিজেপি ৫টি আসন। বাকি একটি আসন পায় সিপিএম। গুঞ্জন শুরু হয়েছিল বিজেপি এক বাম সদস্যকে নিয়ে পঞ্চায়েতে বোর্ড গড়তে পারে। বিজেপি সেই চেষ্টাও করে ছিল। কিন্তু তারই মধ্যে দলের সদস্যা বন্দনা মাহাতো তৃণমূলে যোগ দান করায় বিজেপি–র সেই ব্যর্থ হয়। বন্দনা যোগ দেওয়ায় তৃণমূলের আসন সংখ্যা দাঁড়ায় ৬টি। ফলে ওই গ্রাম পঞ্চায়েত তৃণমূলের দখলে চলে এল বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী শান্তিরাম মাহাতো।অন্যদিকে শুক্রবার পুরুলিয়ার আড়ষা ব্লকের আড়ষা পঞ্চায়েত সমিতির এক কংগ্রেস সদস্য নারায়ণ চন্দ্র মাহাতো ও নির্দলের শ্রীনিবাস মাহাতো তৃণমূলে যোগদান করলেন। তাঁদের হাতে দলীয় পতাকা তুলে দিলেন মন্ত্রী শান্তিরাম মাহাতো। ছিলেন জেলা পরিষদের সভাধিপতি সুজয় ব্যানার্জি–সহ জেলার নেতারা। বিদ্যজনেদের একাংশের মত , বিগত বামফ্রন্টের জমানায় যেভাবে বাংলাকে শশানে পরিণত করা হয়েছিল সেখান থেকে যে ভাবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাংলাকে তুলে নিয়ে এসেছে , উন্নয়নের মাধ্যমে , তার জন্য কোনো প্রশংশায়ই যথেষ্ট নয় । সেই উন্নয়নে অনুপ্রাণিত হয়ে একের পর এক বিরোধী  বিজয়ী প্রার্থী তৃণমূলে যোগ করছে  ।


তথ্য তথ্য ও চিত্র কৃতজ্ঞতা স্বীকার "আজকাল "

No comments:

Post a Comment

loading...