Thursday, 20 September 2018

ফেল করানোর ভয় দেখিয়ে পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণ করলেন প্রধান শিক্ষক:বিজেপি শাসিত বিহারে

ওয়েব ডেস্ক  ২০শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ : এবার  পাটনার এক বেসরকারী স্কুলে প্রধান শিক্ষকের লালসার শিকার হল পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রী। দেশবাসী , কাটুয়া দেখেছে , উন্নাও দেখেছে ,   রোহতাশের ধর্ষণের  সাক্ষী থেকেছে ,এবার পাটনা  ।একের পর এক ধর্ষণের মামলা সামনে আসছে মোদী সরকারের আমলে । লাগাতার গত এক মাস ধরে ধর্ষণ করা হয় ওই বালিকাকে। ধর্ষণের ভিডিও করে সেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে চুপ করে থাকতে বাধ্য করা হত তাঁকে।


কয়েকদিন আগে বালিকা অসুস্থ হয়ে পড়তে তাঁর মা–বাবা চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যান। সেখানেই জানা যায় বালিকা তিন সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বা। তখনই বালিকা পুরো ঘটনা তার পরিবারকে জানায়। নির্যাতিতা জানিয়েছে, একমাস আগে স্কুলের এক শিক্ষক তাকে প্রধানশিক্ষকের ঘরে ডাকে। সেখানে তার পরীক্ষার উত্তরপত্রের নম্বর কেটে নেওয়ার ভয় দেখায়। এবং প্রধান শিক্ষকরের ঘরের পিছনে থাকা গোপন কুঠুরিতে নিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ করে প্রধান শিক্ষক এবং তার সহকারী শিক্ষক। গত একমাস ধরে লাগাতার এই ঘটনা ঘটায় তারা। ধর্ষণের ভিডিও করে সেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়ে ভয় দেখিয়ে চুপ করে থাকতে বাধ্য করা হয় বালিকাকে। পুলিস পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে প্রধান শিক্ষক এবং সহকারী শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে। প্রধান শিক্ষকের ঘরের ভেতরে তৈরি গোপন কুঠুরিরও সন্ধান পেয়েছে পুলিস। ফুলওয়ারিশরিফ থানার এসএইচও, কেশর আলম জানিয়েছেন অভিযুক্তদের যত তাড়াতাড়ি সাজা মেলে সেদিকে নজর রাখছে পুলিস। প্রসঙ্গত ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ড ব্যুরো বলছে ২০১৫ সালে শিশুদের  বিরুদ্ধে অপরাধের হার বেড়েছে ১৪ শতাংশ , এবং ২০১৬ সালে পসকো আইনের আওতায় যে সব মামলা গুলি নথিভুক্ত হয়েছে , তার এক তৃতীয়াংশ যৌন অপরাধ ৷তবে মোদী জমানায় কেন এতো অপরাধ মূলক কাজ কর্ম বাড়ছে ,তার কোনো সদুত্তর  পাওয়া যায়নি কিন্তু হিসেবে বলছে প্রতি ১৫ মিনিটে একটি শিশু যৌন অপরাধের শিকার হচ্ছে ৷

তথ্য কৃতজ্ঞতা স্বীকার "আজকাল "

No comments:

Post a Comment

loading...