Wednesday, 12 September 2018

পুজোর আগেই বেতন বৃদ্ধি করলেন মমতা , সিভিক ভলান্টিয়ারদের

ওয়েব ডেস্ক ১২ই সেপ্টেম্বর ২০১৮:মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জমানায় মানুষকে নিজেদের ন্যায্য দাবি দাওয়া নিয়ে আন্দোলন করে সময় নষ্ট করতে হয়না । মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেই পরিস্তিতি বিচার করে পদক্ষেপ নেন ।  বিদ্যজনেদের একাংশের এরকমই অভিমত ,সেই অভিমতকে শীলমোহর দিয়ে রাজ্য সরকারের তরফ থেকে সিভিল ভলান্টিয়ারদের বেতন বাড়িয়ে দেওয়া হল । জানা গিয়েছে, ৫৫০০ টাকা থেকে এক ধাক্কায় ২৫০০ টাকা বেতন বাড়ানো হচ্ছে তাঁদের।
১ অক্টোবর থেকে কার্যকর হবে নতুন বেতন। সেক্ষেত্রে প্রতিমাসে ৮০০০ টাকা বেতন পাবেন তাঁরা। এর জন্য কোষাগার থেকে অতিরিক্ত ৩৯৩ কোটি ৩৯ লক্ষ টাকা খরচ করতে হবে রাজ্যকে। এর ফলে উপকৃত হবেন রাজ্যের প্রায় ১,২০,০০০ সিভিক ভলেন্টিয়ার। এছাড়া এদিন বৈঠকে ঠিক হয়েছে সরকারি নার্সদের চাকরির মেয়াদও বাড়বে। সরকারি নার্সদের অবসরের বর্তমান বয়স ৬০ বছর। তা বাড়িয়ে ৬২ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।রাজ্যের সরকারি হাসপাতালগুলিতে প্রায় ৮৪ হাজার শয্যা রয়েছে। সঠিক ভাবে পরিষেবা দিতে আরও ৫০ হাজার নার্স থাকা দরকার। বর্তমানে বহু সংখ্যাক নার্সের পদ ফাঁকা পড়ে রয়েছে। সেই সব শূন্যপদ পূরণ করতে সরকার চেষ্টা চালাচ্ছে। হেলথ রিক্র‌্যুটমেন্ট বোর্ড সেই প্রক্রিয়া চালাচ্ছে। সেটা সময়সাপেক্ষ ব্যাপার। এছাড়াও চাকরিপ্রার্থী যোগ্য নার্সের সংখ্যাও বর্তমানে অপ্রতুল। স্বাস্থ্যের মতো গুরুত্বপূর্ণ পরিষেবার মান বজায় রাখতে সরকার বদ্ধপরিকর। সে কারণে কোনও খামতি রাখতে চায় না। তাই নার্সদের পক্ষে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সরকারের এই সিদ্ধান্তে দু'‌দিক থেকেই সুবিধা হবে নার্সদের। একদিকে যেমন কর্মরত নার্সরা চাকরির মেয়াদ আরও বেশিদিন পাবেন, তেমনই আরও বেশি সংখ্যাক নার্স নিয়োগ করার সুযোগ তৈরি হবে, যাতে নার্সদের অপ্রতুলতার সমস্যারও অনেকটা সমাধান হবে। এর আগে সরকারি চিকিত্‍সকদের অবসরের বয়স বাড়িয়ে ৬২ করা হয়েছে এবং শিক্ষক-চিকিত্‍সকদের অবসরের বয়স বাড়িয়ে ৬৫ বছর করেছে সরকার। বিদ্যজনেদের একাংশের বক্তব্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যে মানুষের কথা কতটা ভাবেন এটা তারই প্রমান । ৩৪ বছরের বাম শাসিত আমলে এরকম হয়েছে কি ? সেখানে দীর্ঘ যুগের পার্টিবাজির করার পর , একটা আশা জাগতো, মিলতোনা কিছুই ।




তথ্য কৃতজ্ঞতা স্বীকার: কলকাতা ২৪*৭

No comments:

Post a Comment

loading...