Monday, 1 October 2018

পাকিস্তানকে তুলোধোনা করার শৈলী , বিজেপির সুব্রামানিয়াম স্বামী কি বিপ্লব দেবের থেকেই অনুপ্রাণিত ?

ওয়েব ডেস্ক ১লা অক্টোবর  ২০১৮: পাকিস্তান প্রসঙ্গে নিদান শোনালেন বিজেপির সুব্রামানিয়াম স্বামী । তিনি কয়েক মুহূর্তে জন্য জনসাধারণকে মনে করিয়ে দিয়েছিলেন কোনো এক বিচ্ছিন্ন্যতা বাদী নেতা ,বক্তব্য রাখছেন যেটা ভারতীয় রাজনীতিতে বেমানান ।ঠিক এই ভাবেই বিজেপির সুব্রামানিয়াম স্বামীর প্রসঙ্গে নিজেদের অভিমত ব্যক্ত করলেন বিদ্দ্যোজনেদের একাংশ ।


প্রসঙ্গত রবিবার  আগরতলায় একটি সাংস্কৃতিক গৌরব সংস্থার ত্রিপুরা শাখার একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসে ,তিনি সাংবাদিকদের বলেন ‘‌ইমরান খানকে প্রধানমন্ত্রী বলা হলেও তিনি আর কিছুই নন, সরকারের একজন চাপরাশি। কারণ দেশটা সেনাবাহিনী এবং আইএসআই জঙ্গিরাই চালায়।’‌এদিন পাকিস্তানকে তুলোধনা করে স্বামী দাবি করেছেন, ‘‌পাকিস্তানের একটাই সমাধান। বালোচিরা পাকিস্তানের সঙ্গে থাকতে চান না। সিন্ধিরা পাকিস্তানের অংশ হতে চান না। পাশতুনরা পাকিস্তানের সঙ্গে থাকতে চান না। তাহলে পাকিস্তানকে চার ভাগে ভেঙে দিলেই হয়— বালোচিস্তান, সিন্ধ, পাশতুন এবং পশ্চিম পাঞ্জাব।’‌রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় সন্ত্রাস ইস্যুতে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সুর চড়ানোর ব্যাপারে সুব্রহ্ম্যম স্বামীর মন্তব্য, ‘‌আমার মনে হয় রাষ্ট্রপুঞ্জে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কথা বলে নিজের সময় নষ্ট করছেন বিদেশমন্ত্রী। কারণ, ভারত যখন তাকে কোনও বিষয়ে অভিযুক্ত করে তখন মানসিক স্বস্তি পায় পাকিস্তান। তাই পাকিস্তানকে সম্পূর্ণ অবহেলা কর, নিজেদের সেনা প্রস্তুত কর এবং একদিন গিয়ে পুরো দেশটাকে চার টুকরো করে দাও।’‌তবে পাকিস্তানকে তুলোধনা করলেও আরেক প্রতিবেশী রাষ্ট্র বাংলাদেশের পাশেই থাকবে কেন্দ্র বলে জানিয়েছেন স্বামী। একইসঙ্গে তিনি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে একরকম সতর্ক করে বলেছেন, তিনি যেন কট্টর ইসলামপন্থীদের সেখানের মন্দির গুঁড়িয়ে মসজিদ তৈরিতে এবং হিন্দুদের ধর্মান্তকরণে বাধা দেন। স্বামীর হুমকি, ‘‌বাংলাদেশ সরকার যদি হিন্দুদের উপর অত্যাচার বন্ধ করতে না পারে, তাহলে আমি সুপারিশ করব ভারত সরকারকে বাংলাদেশ আক্রমণ করে তা অধিগ্রহণ করতে’‌। বিদ্যজনেদের একাংশের মত ভারতীয় রাজনীতিতে এরকম জঙ্গি মনোভাব একমাত্র বিজেপি নেতা মন্ত্রীদের মুখেই সোনা যাচ্ছে সাম্প্রতিক কালে , এটা খুব একটা ভালো লক্ষণ নয় ।

তথ্য কৃতজ্ঞতা স্বীকার "আজকাল "

No comments:

Post a Comment

loading...