Sunday, 28 October 2018

দেনার দায়ে জর্জরিত অনিল আম্বানি কি করে রাফায়েলের সাথে যুক্ত হতে পারেন ?উস্কে দিচ্ছে জল্পনা

ওয়েব ডেস্ক ২৮শ অক্টোবর, ২০১৮ : কয়েকদিন আগেই রাহুল গান্ধী অভিযোগ করেছিলেন অনিল আম্বানি পকেটে ৩০০০০ কোটি টাকা ঢুকিয়ে দেওয়ার জন্যই রাফায়েলে যুক্ত করা হয়েছিল রিলায়েন্সকে যাদের জীবনে কখনো এভিয়েশন সমন্ধে কোনো রকম কোনো অভিজ্ঞতাই  ছিলনা ।তখনি মানুষের মধ্যে প্রশ্ন উঠেছিল , কেন অনিল আম্বানির রিলায়েন্সকেই বেছে নিল মোদির সরকার ? কিন্তু সাম্প্রতিক কালে কম্পানি ল ট্রাইবুনালে বিভিন্ন কোম্পানির অভিযোগ , প্রমাণিত করছে দেনার দায়ে অনিল আম্বানির রিলায়েন্স এর অবস্থা আগের থেকেই খারাপ ছিল । 
অভিযোগকারীর তালিকায় রয়েছে পেটিএমও। কারোর বকেয়া ২০ কোটি তো কারোর বকেয়া এক কোটি। অভিযোগ দীর্ঘদিন ধরেই অনিল আম্বানির কাছে বকেয়া মেটানোর জন্য আবেদন করেছিলেন তাঁরা। ডিসেম্বরের ১৫ তারিখের মধ্যে ৫৫০ কোটি টাকা বকেয়া মিটিয়ে দিতে বলেছিল শীর্ষ আদালত। বিচারপতি আরএফ নারিমানের নেতৃত্বে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছিল বকেয়া মেটাতে দেরি করতে ১২ শতাংশ সুদ প্রতি বছরের হিসেবে দিতে হবে সংস্থাগুলিকে। কিন্তু তারপরেও বকেয়া মেটানোর কোনও উদ্যোগ নেয়নি অনিল আম্বানি। রিলায়েন্সের হয়ে সেসময় মামলা লড়েছিলেন কংগ্রেস নেতা কপিল সিবল। তিনি আদালতকে জানিয়েছিলেন অনিল আম্বানি তাঁর টেলিকম সংস্থার স্পেকট্রাম বিক্রির জন্য অপেক্ষা করছেন। সেটি বিক্রি করতে গেলে টেলিকম মন্ত্রকের অনুমতি প্রয়োজন। সেই অনুমতি মিললেই সব বকেয়া মিটিয়ে দেওয়া হবে। যদিও কবিল সিবলের এই বক্তব্যের বিরোধিতা করে এরিকসন সংস্থার পক্ষ থেকে শীর্ষ আদালতে বলা হয়েছিল অনিল আম্বানির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার পদক্ষেপ করা হোক।তাহলে অনিল অম্বানিকে উদ্ধার করতেই কি মোদী সরকার তাকে রাফায়েল চুক্তির সঙ্গে যুক্ত করতে চেয়েছিল ?বিদ্যজনেদের এই প্রশ্নের কোনো সদুত্তর সরকারের তরফ থেকে পাওয়া যায়নি । উস্কে দিচ্ছে জল্পনা ।

No comments:

Post a Comment

loading...