Monday, 19 November 2018

বিজেপির তরফ থেকে টিকিট না পেয়ে জ্ঞানদেব নির্দল প্রার্থী হয়ে দাঁড়াচ্ছে , বিপাকে বিজেপি

ওয়েব ডেস্ক ১৯ই নভেম্বর ২০১৮ :হিটলারি শাসন বিজেপির অনেকেই যে মেনে নেবেন সেটা রাজস্থান বিধানসভা  নির্বাচনের প্রাক্কালে বেশি করে প্রকট পাচ্ছে । একের পর এক বিধায়করা টিকিট না পেয়ে ছেড়ে চলে যাচ্ছে  বিজেপি থেকে, তবুও ভাঙব কিন্তু মচকাবোনা  একটা মনোভাবের পরিচয় দিয়েই চলেছে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব । সেটা রাজস্থানের বিজেপির দায়িত্বে যারা ছিলেন তারা বুঝতে পারলেও , মুখে আনছিলেন না অন্তর দলীয় কোন্দল এবার বিজেপি নেতা মন্ত্রীরা দল ছাড়ার সময় মুখখুলছেন খোলা খুলি ভাবে , যা বিজেপির অস্বস্তি বাড়াচ্ছে বৈকি ।



প্রসঙ্গত একনায়কতন্ত্রের তথ্য দেখিয়ে এবার দল ছাড়ছেন বিজেপি বিধায়ক জ্ঞানদেব আহুজা। ইতিমধ্যেই তিনি রাজস্থান বিজেপি নেতৃত্বের কাছে পদত্যাগপত্র পাঠিয়ে দিযেছেন। যা নিয়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছে। আলোয়ার জেলার রামগড় থেকে আহুজা বিধায়ক হয়েছিলেন। কিন্তু এবার তাঁকে টিকিট দেওয়া হয়নি। সাংবাদিকদের তিনি পদত্যাগের কথা জানিয়ে বলেন, ‘‌দলে একনায়কতন্ত্র চলছে। কী কারণে তাঁকে টিকিট দেওয়া হয়নি তা জানানো পর্যন্ত হল না। তাই তিনি পরিবার এবং সমর্থকদের দাবি মতো দল ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তবে তিনি নির্দল প্রার্থী হিসাবে ভোটে দাঁড়াবেন। তাঁর নির্বাচনী ইস্যু হবে হিন্দুত্ব, রাম জন্মভূমি এবং গোরক্ষা।’‌ সুতরাং নির্দল হিসাবে দাঁড়িয়ে বিজেপিকেই যে তিনি চ্যালেঞ্জ জানাবেন তা মনে করছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা।  এদিকে রাজস্থান বিজেপি তিন দফায় ২০০টি বিধানসভা আসনের মধ্যে ১৭০ জনের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করেছে। এই তালিকা থেকে বাদ পড়েছেন একাধিক বিধায়ক এবং মন্ত্রী। কারণ হিসাবে লোকসভা উপনির্বাচনে কংগ্রেসের জয়কেই মনে করা হচ্ছে। প্রথম দফার প্রার্থী তালিকা প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গে দলে কার্যত পদত্যাগের হিড়িক পড়ে যায়। সেই তালিকায় নতুন সংযোজন জ্ঞানদেব আহুজা।বিদ্যজনেদের একাংশের অভিমত , বিজেপির কেন্দ্রীয় সংগঠন ভেতরে ভেতরে কংগ্রেস কে যে সমীহ করছে এটা তারই নিদর্শন  ।যতই নেতা মন্ত্রীরা বিজেপি ছেড়ে চলে যাক কেন্দ্রীয় বিজেপি কোনো মতেই নিজেদের প্ল্যানযে বদলাবে না এটা একরকম পরিষ্কার  ।

No comments:

Post a Comment

loading...