Monday, 25 February 2019

কৃষ্ণগঞ্জের পর বহরমপুর , আততায়ীর গুলিতে নিহত তৃণমূল নেতা , তীর বিজেপির দিকে

ওয়েব ডেস্ক ২৫শে  ফেব্রুয়ারী ২০১৯:রাতারাতি বিজেপির উত্থান পশ্চিমবঙ্গে যে কখনোই সম্ভব ছিলনা সেটা কোনো বাচ্চা ছেলেও পর্যন্ত বলে দিতে পারে । বাংলার রাজনীতিতে এমনই । আজ যারা সক্রিয় বিজেপি করছে তাদের অতীত ঘটলে দেখা যাবে তাদের একটা বড় অংশই আগে সিপিএম করতো । এবার রাজনৈতিক ভাবে মমতার সাথে পেরে না ওঠার জন্যই কি হিংসার রাজনীতি কিছু সংক্ষক মানুষ বেছে নিচ্ছেন ? প্রশ্ন উঠছে সর্বত্রই ।

 প্রসঙ্গত  নদিয়ার কৃষ্ণগঞ্জে তৃণমূল বিধায়ক খুনের কায়দায় মুর্শিদাবাদের বহরমপুরে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি করে খুন করা হল যুব তৃণমূল নেতাকে। সোমবার সকাল সাড়ে দশটা নাগাদ বহরমপুরের নিয়ামিস পাড়া ঘাটে নৌকা থেকে নেমে বাড়ি ফিরছিলেন নাজিমুল শেখ নামে ওই যুব তৃণমূল নেতা। চার থেকে পাঁচ জন দুষ্কৃতী বাইকে করে এসে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি করে চম্পট দেয়। রক্তাক্ত অবস্থায় নাজিমুলকে হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করে। এই খুনের ঘটনায় কোনও ব্যক্তিগত আক্রোশ না রাজনৈতিক কারণ রয়েছে তা খতিয়ে দেখছে পুলিস। যদিও স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের অভিযোগ বিজেপি আশ্রিত দু্ষ্কৃতীরাই এই কাজ করেছে। তাঁদের দাবি নাজিমুল এলাকায় অত্যন্ত জনপ্রিয় নেতা ছিলেন। তাই এখানে ব্যক্তিগত আক্রোশের কোনও কারণই থাকতে পারে না। কয়েকদিন আগে ঠিক একইভাবে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি করে খুন করা হয়েছিল নদিয়ার কৃষ্ণগঞ্জের বিধায়ককে। বাংলার রাজনীতি কখনোই ব্যক্তিগত আক্রমণকে সমর্থন করেনা । এই শোন হিংস্র রাজনীতি এখনই বন্ধ হওয়া উচিত বলে মনে করেন বাংলার মানুষ ।

No comments:

Post a Comment

loading...