Wednesday, 27 March 2019

যারা তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করেছেন , তারা ২৪ তারিখের পর কপাল চাপড়াবেন বলে মন্তব্য জ্যোতিপ্রিয়র

ওয়েব ডেস্ক  ২৭শে  মার্চ ২০১৯: সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া অর্জুন সিং কে একহাত নিলেন রাজ্যের খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক ।বিজেপিতে পা রাখা, অর্জুন সিংয়ের যে কতটা ভুল সিদ্ধান্ত ছিল , তা আগামী দিনে নিজেই বুঝতে পারবেন বলে মনে করেন  জ্যোতি প্রিয় মল্লিক । প্রসঙ্গত ভোটের বাজারে তৃণমূলের ঘর ভাঙিয়ে বিজেপির সংগঠন বাড়ানোর ‘গুরুদায়িত্ব’ যিনি কাঁধে তুলে নিয়েছেন, সেই মুকুল রায়কেই এ প্রসঙ্গে নাম না করে কটাক্ষ করেছেন উত্তর ২৪ পরগনা জেলা তৃণমূলের সভাপতি জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। তিনি বলেছেন, ‘‘একটা বিধায়কও বেরোবে না। দাদার পাল্লায় পড়ে অর্জুন সিং গিয়েছেন।
২৪ তারিখের পর উনি কপাল চাপড়াবেন। গ্রামের বুড়োবুড়ির মতো এমন মাথা ঠুকবেন যে কপাল ফাটিয়ে ফেলবেন।’’এখানেই শেষ নয় লুচি-আলুর দমের মাধ্যমে আতিথেয়তা পর থেকেই ‘গৃহস্থ’ তথা বিধাননগরের মেয়র সব্যসাচী দত্তের বিজেপিতে যোগদান নিয়ে চর্চা শুরু হয়েছে বঙ্গ রাজনীতির অলিন্দে। দোলের দিন বিধাননগরে মারোয়াড়ি সমাজের অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে আবির খেলেন রাজারহাট-নিউটাউনের বিধায়ক সব্যসাচী। সেদিন তৃণমূলের এই নেতার মুখে শোনা যায় ‘ভারত মাতা কি জয়’। এরপরই সব্যসাচীর বিজেপিতে যোগদানের জল্পনা বিশেষভাবে জোরালো হয়ে ওঠে। এরপর মঙ্গলবার তৃণমূলে একদা সব্যসাচী দত্তের সতীর্থ অর্জুন সিং-এর মন্তব্য ফের জল্পনার রসদ জুগিয়েছে। বিধাননগরের মেয়রের তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান প্রসঙ্গে সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া অর্জুন বলেছেন, ‘‘সব্যসাচী দত্ত কেন, তৃণমূলের ১০০ জন বিধায়ক বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন। অপেক্ষা করুন।’’এই সব তৃণমূল কর্মীদের কাছে , ভিত্তিহীন কথা ছাড়া কিছুই নয় । জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের কথাই যে আদতে তারা শীল মোহর দিচ্ছেন এতেই পরিষ্কার ।

No comments:

Post a Comment

loading...