Thursday, 25 April 2019

অর্জুনের গড় ভাটপাড়াতেই "মদন মিত্র " দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করবেন , এবং তিনি দাঁড়াচ্ছেন মমতাদির ইচ্ছেতেই

ওয়েব ডেস্ক ২৫শে এপ্রিল ২০১৯: বুনো ওলের বদলে বাঘা তেতুলই যে মোক্ষম দাওয়াই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এটা ভালো ভাবেই জানেন ।তাই এই গুরু দায়িত্ব মদন মিত্র ছাড়া অন্য কারুর হাতে দিলেন না তিনি ।প্রসঙ্গত অর্জুন গড় ভাটপাড়ায় ‘পরীক্ষিত’ সৈনিক মদন মিত্রের উপর ভরসা রাখলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ভাটপাড়া বিধানসভার আসন্ন উপনির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী হচ্ছেন মদন মিত্র, বৃহস্পতিবার সিউড়ির জনসভা থেকে আচমকা একথা জানালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
এই কেন্দ্রের বিধায়ক অর্জুন সিং তৃণমূল কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পর ভাটপাড়া কেন্দ্রের উপনির্বাচন কার্যত অনিবার্য হয়ে পড়েছিল। আর তাই রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল সময় থাকতেই প্রার্থীর নাম ঘোষণা করে রাখল। সিউড়িতে লোকসভার প্রচার মঞ্চ থেকে মমতার এই ঘোষণায় তিনি ‘আপ্লুত’ বলে  প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন মদন মিত্র। প্রসঙ্গত, ১৯৯৮ সালে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ধরে যে কয়েকজন তৃণমূল তৈরি করেছিলেন, তাঁদের মধ্যে অন্যতম মদন মিত্র। বঙ্গ রাজনীতিতে বরাবরই মমতার আনুগত সৈনিক হিসেবে পরিচিত মদন মিত্র। দলের যে কয়েকজন সৈনিকের উপর দলনেত্রী অগাধ ভরসা রাখেন, তাঁর মধ্যে বরাবরই অন্যতম মদন। দলের সংগঠন মজবুত করা থেকে মিটিং-মিছিলের আয়োজন ও নেতৃত্বদানে বরাবরই অনন্য ভবানীপুরের মিত্র বাড়ির এই সদস্য। আর এসবের স্বীকৃতি স্বরূপ ২০১১ সালে পরিবর্তনের সরকারের ক্রীড়া ও পরিবহণমন্ত্রকের দায়িত্ব সামলেছিলেন মদন। সাধারণ ট্যাক্সি ইউনিয়ের নেতা থেকে রাজ্যের মন্ত্রী হওয়া, বঙ্গ রাজনীতিতে মদন মিত্রের উত্থান আক্ষরিক অর্থেই নজর কাড়া।

No comments:

Post a Comment

loading...