Thursday, 9 May 2019

ভোটের ফলাফল আগাম আন্দাজ করেই কি , যে জায়গায় বিজেপি নেই এবার সেখানে সভা করে বেড়াচ্ছেন মোদীজি , অমিত শাহেরা?

ওয়েব ডেস্ক ৯ই মে ২০১৯: মোদী , অমিত শাহের কি বুঝতে পেরেছেন এবার তারা আর সরকারে ফিরতে পারবেননা ? আর হয়তো বুঝতে পেরেছেন বলেই মুখে যা খুশি তাই বলে যাচ্ছেন । শেষ দু দফার ভোটে মোদীজি আর অমিত শাহের  নির্বাচনী সভা ঢেলে সাজানো হয়েছে নতুন করে। পূর্ব নির্ধারিত সূচির বাইরে করবেন অতিরিক্ত সভা। ঠাসা কর্মসূচি। দম ফেলার পর্যন্ত সময় নেই। বিশেষ জোর দেওয়া হয়েছে পশ্চিমবঙ্গ, পাঞ্জাব এবং মধ্যপ্রদেশে, যেখানে ক্ষমতায় নেই বিজেপি। সেইসঙ্গেই, ‘সবকা সাথ,সবকা বিকাশ’কে আড়াল করতে তীব্র করা হচ্ছে সাম্প্রদায়িক প্রচার। নির্বাচনীবিধিকে তোয়াক্কা না করে যা খুশি বলে চলেছেন।
আর তিন-সদস্যের নির্বাচন কমিশনে দু’জন ধৃতরাষ্ট্র দু’জনের কোনও ভুলই দেখতে পাচ্ছেন না। বাকি একজনের আপত্তি সংখ্যাগরিষ্ঠতায় টেকেনি।পাঁচদফা ভোট শেষ হয়ে গিয়েছে। বাকি আর দু’দফা। শেষ বিধানসভা নির্বাচন ও রাজ্যওয়াড়ি ভোটের প্রবণতা দেখে নিউজক্লিকের হিসাবে, পাঁচদফায় যে ৪২৪টি আসনে নির্বাচন হয়েছে, সেখানে বিজেপি’র নেতৃত্বে এনডিএ পেতে চলেছে সাকুল্যে ১২৪টি আসন। যেখানে পাঁচবছর আগে তারা পেয়েছিল ২৫১টি আসন। এই পাঁচদফায় কংগ্রেসের নেতৃত্বাধীন ইউপিএ’র আসন ৫৫ থেকে বেড়ে হবে ১৬৯। এই দু’টি জোট ছাড়া এনডিএ-বিরোধী আঞ্চলিক দলগুলির জোট,যারা চূড়ান্ত ফল ঘোষণার পরে খুব সম্ভবত ইউপিএ-কে সমর্থন করতে চলেছে, তাদের মধ্যে উত্তরপ্রদেশে সমাজবাদী পার্টি, বহুজন সমাজ পার্টি ও রাষ্ট্রীয় লোক দলের জোট তাক লাগিয়ে দেওয়া ফল করতে চলেছে। রাজ্যে আশিটির মধ্যে ইতিমধ্যে যে ৫৩টি আসনে নির্বাচন হয়েছে, তাতে এই জোট এবারে পেতে চলেছে ৩৭টি আসন, যেখানে পাঁচবছর আগে পেয়েছিল মাত্র চারটি আসন। বাকি দু’দফায় ২৭টি আসনের নির্বাচনে এই সংখ্যা আরও বাড়বে। উত্তরপ্রদেশের পাশাপাশি তামিলনাডুতেও, জোর ধাক্কা খেতে চলেছে এনডিএ। রাজ্যের ৩৮টি আসনের (একটি কেন্দ্রে ভোট স্থগিত রাখা হয়েছে) মধ্যে বিজেপি’র জোটসঙ্গী এডিএমকে হারতে চলেছে ২৮টি আসনে।

No comments:

Post a Comment

loading...