Wednesday, 12 June 2019

এক দিকে বিজেপি লোকসভায় ৩০০র ওপর আসন জিতলো , অন্য দিকে বিজেপি শাসিত যোগীর রাজ্যে সাংবাদিকদের মুখে প্রস্রাব করা হল ,বাহ:

ওয়েব ডেস্ক ১২ই  জুন ২০১৯: ৩০০র ওপর আসন জেতার উল্লাসের বহিঃপ্রকাশ কি না বলা মুশকিল তবে একটা চোরা প্রভাব তো বইছেই , এই বিষয়ে কোনো সন্দেহ নেই। কেননা যত কান্ড সেই বিজেপি শাসিত যোগীর রাজ্যে , কি হয়েছে ? একজন সাংবাদিকের মুখে প্রস্রাব করা হয়েছে । এর থেকে আর জঘন্য কি বা হতে পারে ? এই সব ঘটনা কানে শোনাও পাপ । তবু দেশের মানুষের জানা উচিত যোগী আদিত্যনাথের আমলে কি সব নৈরাজ্যের সৃষ্টি হয়েছে উত্তর প্রদেশে । প্রসঙ্গত একটি ট্রেন লাইনচ্যুত হওয়ার খবর কভার করতে গিয়েছিলেন নিউজ ২৪ টিভির সাংবাদিক অমিত শর্মা। কিন্তু খবর কভার করতে গিয়ে পুলিশের হাতে মার খেতে হয় অমিতকে। ঘটনাটির ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই হইচই শুরু হয়েছে।
অমিত শর্মা বলেছেন, ‘‌রেল পুলিশের আধিকারিকরা সাধারণ পোশাকে ছিলেন। একজন ধাক্কা দিয়ে আমার ক্যামেরা ভেঙে দিয়েছেন। একজন ধাক্কা দিয়ে আমাকে মাটিতে ফেলে দেন। আমি উঠতে গেলে মারা হয়। গালিগালাজ করা হয়। আমাকে আটকে রাখা হয়। এমনকি আমার মুখে প্রস্রাব পর্যন্ত করা হয়েছে।’‌ মঙ্গলবার রাতের এই ঘটনা শোরগোল ফেলে দিয়েছে। রেল পুলিশরা অমিতের ফোন পর্যন্ত কেড়ে নিয়েছেন। লাইনচ্যুত ট্রেনের ছবি তোলার অপরাধে। ঘটনার কথা জানামাত্রই একাধিক সাংবাদিক থানায় হাজির হন। তখন অমিতকে আটকে রেখে রীতিমতো মারধর করা হচ্ছিল। উপস্থিত সাংবাদিকরা সেই ছবি তুলে সোশ্যাল মিডিয়ায় আপলোড করে দেন। বাঁচার জন্য পুলিশের উচ্চ আধিকারিকদের ফোনও করেছিলেন অমিত। তাঁকে ছাঁড়ানোর জন্য বাকি সাংবাদিকরা বিক্ষোভ শুরু করেন। অবশেষে বুধবার সকালে ছেড়ে দেওয়া হয় অমিতকে।এর থেকেই বোঝা যায় কিরকম গুন্ডামি চলছে উত্তর প্রদেশে ।  তা সত্ত্বেও কোন আশ্চর্য প্রদীপের  ছোঁয়াতে বিজেপি এতো সাফল্য পাচ্ছে , সাধারণ মানুষের কাছে অব্যশই সন্দেহের  ।

No comments:

Post a Comment

loading...