Wednesday, 4 December 2019

মমতার আপত্তিকে অগ্রাহ্য করে ২০২৪ মধ্যে বিদেশিদের তাড়িয়েই ছাড়বেন বলে নিদান শোনালেন অমিত শাহ

ওয়েব ডেস্ক ৪ঠা  ডিসেম্বর ২০১৯: এক দিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যখন  এনআরসিকে বিজেপি চাল বলে মনে করছেন তখন এনআরসি হবেই বলে সপ্তমে সুর চড়াচ্ছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ।বিজেপি বদ্ধপরিকর যাই হোক না কেন নাগরিক পঞ্জী গোটা দেশে হবেই আর বাংলাও তার বাইরে নয় । কিন্তু অন্য দিকে মমতাও জনগণকে আশ্বাস দিয়েছে নাগরিক পঞ্জী কিছুতেই বাংলায় হতে দেবেন না । এরই মাঝে অনুপ্রবেশকারীদের দেশছাড়া করার হুশিয়ারি দিয়ে রাখলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের
আগে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি বাস্তবায়ন করে সব অনুপ্রবেশকারীকে ভারত থেকে তাড়িয়ে দেয়া হবে বলে হুশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। মঙ্গলবার (৩ ডিসেম্বর) ঝাড়খণ্ডে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিয়ে অমিত শাহ এ হুমকি দেন। সূত্রের খবর অনুসারে , এর আগে বহুবার অনুপ্রবেশকারীদের দেশ থেকে তাড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিলেও প্রথমবারের মতো সময়সীমা উল্লেখ করেছেন অমিত। বলেন, ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগেই সারা দেশে এনআরসি তৈরি করে প্রত্যেক অনুপ্রবেশকারীকে চিহ্নিত করা হবে।তিনি বলেন, ভোটের আগেই সব অনুপ্রবেশকারী বিদেশিকে তাড়ানো হবে দেশ থেকে। বিদেশি তকমা দিয়ে বিতাড়নের এ উদ্যোগ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করায় প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীকে তীব্র ভাষায় আক্রমণ করেন অমিত শাহ। রাহুলকে প্রশ্ন করে তিনি বলেন, বৈধ নাগরিকত্বের তালিকা থেকে বাদ পড়াদের নিয়ে রাহুল গান্ধীর এত উদ্বেগ কেন? অনুপ্রবেশকারীরা কি আপনার খুড়তুতো ভাই? বিদেশি আখ্যা দিয়ে ভারত থেকে মানুষকে তাড়ানোর প্রশ্নে কিছু মানবিক প্রশ্ন তুলেছেন রাহুল। এ জন্য তাকে বিদ্রূপ করে চক্রধরপুর ও বহরাগোড়ার নির্বাচনী সভায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, রাহুল বাবা বলেন, তাদের তাড়াবেন না। তারা কোথায় যাবে? কী খাবে? কিন্তু কেন তাড়াব না? তারা কি আপনার খুড়তুতো ভাই? একই সঙ্গে অমিতের হুংকার, ‘আপনারা নিশ্চিত থাকুন- ২০২৪ সালের ভোটের আগে সব অনুপ্রবেশকারীকে চিহ্নিত করে তাড়িয়ে দেয়া হবে।রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের অভিমত , তৃতীয় বারের জন্য দিল্লির মসনদে বসার জন্যই আগে থেকে প্ল্যান ঠিক করে রাখছে । 

No comments:

Post a Comment

loading...