Monday, 13 April 2020

অনাহারের জ্বালায় ৫ সন্তানকে নদীতে ফেললো মা, এটাই আসল ছবি যোগীর রাজ্যে

ওয়েব ডেস্ক ১৩ই এপ্রিল ২০২০ :করোনার প্রাদুর্ভাবে দেশ জুড়ে চলছে লকডাউন। এতে নিম্ন আয়ের অনেক মানুষের আয়ের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। লকডাউনের ফলে গত কয়েকদিন ধরে শিশু সন্তানদের নিয়ে অনাহারে দিন কাটছিল এক অসহায় মায়ের। খাবার জোগাড় করতে না পেরে অবশেষে পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ফেলে দিয়েছেন তিনি।
রোববার এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের ভাদোহি জেলায়।
সূত্রের খবর অনুসারে , গত কয়েকদিন ধরে চলা লকডাউনের কারণে আয়ের পথ সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। ঘরে যেটুকু খাবার সঞ্চিত ছিল এই কদিনে তাও ফুরিয়ে গিয়েছিল। খাবারের জোগাড় করতে না পেরে পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ফেলে দেন ওই নারী।

এদিকে মর্মান্তিক এ ঘটনার খবর জানতে পেরে পুলিশের শীর্ষ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে যান। শিশুদের খোঁজে গঙ্গায় শুরু হয়েছে তল্লাশি।

অভিযুক্ত নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তিনি মানসিকভাবে অসুস্থ বলে পুলিশ জানিয়েছে।

তবে সূত্রের বরাতে খবরে বলা হয়, অভিযুক্ত নারী একজন দিন আনা দিন খাওয়া শ্রমিক। লকডাউনের ফলে উপার্জন সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে যায় তার। যেটুকু সঞ্চিত অর্থ ও খাবার ছিল তাও শেষ হয়ে যায়।

ফলে তার ও সন্তানদের অনাহারে দিন কাটছিল। ক্ষুধার্ত সন্তানদের কষ্ট সহ্য করতে না পেরেই তিনি তাদের গঙ্গায় ফেলে দেন বলে ওই নারী স্থানীয়দের জানিয়েছেন।

জানা গেছে, করোনা লকডাউনে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের গরিব মানুষ। তাদের একটা বড় অংশের মানুষের আয়ের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। খাবারে অভাবে ঘরে ঘরে তীব্র হাহাকার চলছে।

লকডাউনের কারণে রাজ্যের একজনও মানুষ অভুক্ত থাকবে না বলে ঢাকঢোল পিটিয়ে প্রচার করছে উত্তরপ্রদেশের যোগী আদিত্যনাথ সরকার। কিন্তু ভাদোহি জেলার ঘটনা রাজ্যের প্রান্তিক মানুষের বিপন্নতার ছবি আরও প্রকট করে তুলেছে।

প্রসঙ্গত ভারতে করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় সাড়ে আট হাজার। গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন আরও ৯০৯ জন। মৃত ৩৪ জন। এ নিয়ে মোট মৃত ২৭৩ জনে দাঁড়িয়েছে।

No comments:

Post a comment

loading...