Sunday, 12 April 2020

জামাতিদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ যোগীর

ওয়েব ডেস্ক ১২ ই এপ্রিল ২০২০ :দেশে  করোনা ভাইরাসের প্রকোপ প্রতিদিন বেড়েই চলেছে। দেশে তাবলীগ জামাতের  অনেক সদস্যের মধ্যেই করোনার রিপোর্ট পজেটিভ পাওয়া গেছে। আরেকদিকে, এবার তাবলীগ জামাতিদের  বিরুদ্ধে অ্যাকশন নেওয়া হচ্ছে। উত্তর প্রদেশে  বিদেশী তাবলীগ জামাতিদের পাসপোর্ট আর ভিসা নিয়মের লঙ্ঘনের দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। আর এবার তাঁদের জেলে পাঠানো হচ্ছে।
উত্তর প্রদেশে তাবলীগ জামাতিদের বিরুদ্ধে কড়া অ্যাকশন নেওয়া হচ্ছে। বহরাইচে কোয়ারেন্টাইন  পিরিওড শেষ হওয়ার পর ইন্দোনেশিয়া  আর থাইল্যান্ডের  ১৭ জন বিদেশীকে জেলে পাঠানো হয়েছে। বহরাইচ পুলিশ  শহরের তাজ আর কুরেশি মসজিদ থেকে ইন্দোনেশিয়ার আর থাইল্যান্ডের ১৭ জন বিদেশী সমেত মোট ২১ জনকে গ্রেফতার করেছিল। যাঁদের এতদিন কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছিল।
কোয়ারেন্টাইন পিরিওড শেষ হতেই ১৭ বিদেশী সমেত ২১ জন তাবলীগ জামাতিদের ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে পেশ করা হয়। তাঁদের মধ্যে ১৭ জন বিদেশীকে ভিসা আর পাসপোর্ট নিয়মের লঙ্ঘনে দোষী মানা হয়, আর তাঁদের জেলে পাঠানো হয়। এর আগে এদের সবাইকে ভাইরাসের সংক্রমণের বিপদ দেখে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছিল। সেখাতে তাঁদের রিপোর্ট নেগেটিভ পাওয়া গেছে।
এদের সবার বিরুদ্ধে বহরাইচের নগর কোতওয়ালি থানায় আইপিসি ধারা ২৬৯, ২৭০, ২৭১, ১৮৮ মহামারী আইন (১৮৯৭) এর ধারা ০৩, পাসপোর্ট আইন (১৯৬৭) এর ধারা ১২ (৩), বিদেশী বিষয়ক আইন ১৯৪৬ এর ধারা ১৪(b)। ১৪ (c) ছাড়াও দুর্যোগ আইন (২০০৫) এর ধারা ৫৬ এর অনুযায়ী মামলা দায়ের করা হয়।

পুলিশ সুপার বিপিন কুমার মিশ্রা বলেন, ৩১ মার্চ পুলিশ খবর পেয়েছিল যে, তাবলীগ জামাতে অংশ নেওয়া কিছু সদস্য শহরের কুরেশি আর তাজ মসজিদে লুকিয়ে আছে। এরপর সেখানে তল্লাশি চালানো হয়, তল্লাশিতে তাজ মসজিদ থেকে ২ ভারতীয় এবং ৭ থাইল্যান্ডের নাগরিক এবং কুরেশি মসজিদ থেকে ২ ভারতীয় সমেত ১০ জন ইন্দোনেশিয়ার নাগরিকদের গ্রেফতার করা হয়। এরপর তাঁদের কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়।

No comments:

Post a Comment

loading...