Tuesday, 26 May 2020

শেতাঙ্গের পায়ের তলায় কৃষ্ণাঙ্গের মাথা ,ভিডিও ভাইরাল

ওয়েব ডেস্ক ২৬ শে মে ২০২০:সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া এক ভিডিওতে দেখা যায়, একজন শ্বেতাঙ্গ পুলিশ সদস্য একজন কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তির গলায় চাপ দিয়ে রেখেছেন। কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তিটি চিৎকার বলে বলছেন ‘আমি শ্বাস নিতে পারছি না’। কিন্তু পুলিশ সদস্য তাকে আর ছাড়েননি। এই ঘটনায় ওই কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তির মৃত্যু হয়।এই মৃত্যুর ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রে তোলপাড় পড়ে গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের মিনেসোটা অঞ্চলে। ওই অঞ্চলের পুলিশ জানিয়েছে, একটি জালিয়াতির ঘটনা ঠেকাতে পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির হয়েছিলো। এক পর্যায়ে ‘পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদের’ সময় তার মৃত্যু হয়।

ঘটনাটি তদন্ত করার জন্য দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে এফবিআইকে। উক্ত ব্যক্তির মৃত্যুর ঘটনা আফ্রিকান আমেরিকানদের উপর অত্যাচারের নতুনতম অভিযোগ। সম্প্রতি বেশ কয়েকটি এ রকম ঘটনা ঘটেছে, যে সব ঘটনায় অভিযোগ উঠেছে সমাজের উঁচু শ্রেণির লোকদের বিপক্ষে।

সংবাদ মাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, ঘটনাটি ঘটার সময় পুলিশ কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তিকে একটি গাড়ির ভেতরে পায়। কিন্তু ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে লোকটিকে গাড়ির নিচে দেখা যায়।

পুলিশি বিবৃতিতে বলা হয়েছে, লোকটিকে গাড়ি থেকে নামতে বলা হলে তিনি বের হয়ে পুলিশের সাথে ধস্তাধস্তি করেন। এক পর্যায়ে তাকে শারীরিকভাবে অসুস্থ মনে হয়।

একজন প্রত্যক্ষদর্শী ঘটনার ভিডিও রেকর্ড করেন। ভিডিওতে দেখা যায়, পুলিশ অফিসার লোকটিকে মাটিতে ফেলে দেন এবং লোকটি চিৎকার বলে থাকেন “আমাকে মেরে ফেলবেন না”।

ভিডিওতে প্রত্যক্ষদর্শীকে পুলিশের উদ্দেশ্যে বলতে শোনা যায় “উনার গলা থেকে হাঁটু সরান”। এ সময় লোকটির নাক দিয়ে রক্ত ঝড়ছিলো।

কিছুক্ষণের মধ্যে লোকটির নড়াচড়া বন্ধ হয়ে যায়। এরপর স্ট্রেচারে উঠিয়ে একটি অ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে নিয়ে যাওয়া হয়।

এই ঘটনার সময় সেখানে দুজন পুলিশ সদস্য ছিলেন। তাদেরকে ছুটিতে পাঠানো হয়েছে। এ দিকে, প্রত্যক্ষদর্শীর ধারণ করা ভিডিওটি ঘটনার তদন্তের জন্য সংগ্রহ করেছে পুলিশ।

ভিডিওটি ভাইরাল হওয়ার পর পুলিশ বলেছে, “আমাদের কাছে যথেষ্ট প্রমাণাদি আছে। এফবিআই এ ঘটনার তদন্ত করবে।”

No comments:

Post a comment

loading...