Monday, 3 August 2020

সেনা সরানোর বদলে উত্তরাখণ্ডের সীমান্ত এলাকায় সেনা মোতায়েন করেছে চীন

ওয়েব ডেস্ক ৩রা  অগাস্ট ২০২০:চীন-ভারত উত্তেজনা বেড়েই চলেছে। লাদাখ নিয়ে টানাপড়েনের মধ্যেই উত্তরাখণ্ডের সীমান্ত এলাকায় সেনা মোতায়েন করেছে চীন। এছাড়া উত্তর সিকিম ও অরুণাচল প্রদেশের সীমান্ত বরাবরও সেনা মোতায়েন করছে চীন । এ ঘটনায় গভীর উদ্বিগ্ন ভারত। চীনের এ কাজে নেপালের সমর্থন রয়েছে বলে খবর প্রকাশ করেছে ভারতীয় গণমাধ্যম।
লাদাখে শান্তি ফেরাতে চীনের সঙ্গে কমান্ডার পর্যায়ে রবিবার পঞ্চম দফা বৈঠকে বসে ভারত। বৈঠকে প্যাংগং লেকসহ পূর্ব লাদাখের একাধিক এলাকা থেকে চীনা সেনা সম্পূর্ণ প্রত্যাহারের বিষয়ে ফের আহ্বান জানায় দেশটি। চীনের মোলডো এলাকায় এই বৈঠকে ভারতীয় প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল হরিন্দর সিংহ।

ভারতের দাবি, বারবার আহ্বানের পরও ওই এলাকা থেকে এখনো সেনা সরায়নি চীন। এর মধ্যেই নতুন কয়েকটি সীমান্তে সেনা উপস্থিতি বাড়িয়েছে দেশটি।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, উত্তরাখণ্ডের কাছে ভারত-নেপাল সীমান্তের লিপুলেখ পাসে গেলো কয়েক দিন ধরে সেনা সমাবেশ বাড়াচ্ছে চীন। সম্প্রতি ওই এলাকাকে নিজেদের মানচিত্রে অন্তর্ভুক্ত করে নেপাল। চীনকে এবার সহায়তা করছে নেপাল। যা নিয়ে নরেন্দ্র মোদি প্রশাসন নতুন করে অস্বস্তিতে। এ অবস্থায় কেন্দ্রীয় সরকারের কড়া সমালোচনা করেছে বিরোধীদল কংগ্রেস।

কংগ্রেস পার্টির নেতা রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালা বলেন, লিপুলেখ পাসে আমাদের ভূখণ্ডে চীনা আগ্রাসন ঘটছে। দেশের রক্ষায় ভারতীয় সেনা বুক চিতিয়ে দাঁড়িয়ে। কিন্তু চোখে চোখ রেখে যার কথা বলার ছিল, তিনি কোথায়? প্রধানমন্ত্রী কবে চীনকে বার্তা দেবেন?

No comments:

Post a comment

loading...