Thursday, 6 August 2020

বেসরকারি বাসের কর মকুব করলো রাজ্য,তবুও বাস ভাড়ার বৃদ্ধির পক্ষে অনড় বাস মালিকেরা

ওয়েব ডেস্ক ৬ই অগাস্ট ২০২০:বেসরকারি বাসের কর মুকুব সেপ্টেম্বর প‌র্যন্ত, ঘোষণা নবান্নের
বৃহস্পতিবার নবান্নের সাংবাদিক বৈঠকে বেশ কয়েকটি ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরমধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল বেসরকারি বাস ও ট্যাক্সির কর মুকুব করেছে রাজ্য সরকার। এদিন স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, আগামী ৩০শে সেপ্টেম্বর প‌র্যন্ত শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ‌যানবাহন বাদে সমস্ত বেসরকারি বাস ও ট্যাক্সির কর মুকুব করা হল। এছাড়া সমস্ত রকম পারমিট ফি-ও দিতে হবে না বাস ও ট্যাক্সি মালিকদের। এর সাথে সমস্ত রকম অ্যাডিশনাল করও মুকুব করেছে রাজ্য প্রশাসন।
এর সাথে স্বরাষ্ট্র সচিব জানান, ‌যে সমস্ত বাস মালিকরা গত ৩১শে মার্চ প‌র্যন্ত তাঁদের বকেয়া কর জমা দেননি, তাও এই ছাড় পেতে চান, তাঁদের আগামী ৩১শে অগাস্ট প‌র্যন্ত সময়সীমা দেওয়া হয় বকেয়া কর জমা দিয়ে দেওয়ার। সময়ের মধ্যে জমা দিলে তাঁদের ফাইন মুকুব করা হবে বলে জানান আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়।

এরপর, চিকিৎসাক্ষেত্রে বেশ কিছু নতুন সিদ্ধান্তের ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা। চিকিৎসার সুবিধার্থে আরও চিকিৎসক নিয়োগের ব্যবস্থা করা হবে বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী। ও‌য়াকইন ইন্টারভিউ এর মাধ্যমে ‌যত তাড়াতাড়ি সম্ভব নি‌যুক্ত করা হবে চিকিৎসকদের। এর সাথে সাথে প্রায় ৫০০ জন হাউজ স্টাফ নি‌যুক্ত করা হবে বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নবান্নে বৈঠকে জানান, ইতিমধ্যেই সুরেন্দ্রনাথ ল কলেজের আর্জি মত রাজারহাটে ৫৮ কাটা জমির ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর সাথে সাথে রাজ্যে করোনা মোকাবিলায় ‌যে কোভিড ক্লাব তৈরি করা হয়েছে সেখানে ব্যবস্থা করা হয়েছে টেলি মেডিসিনের। এখানে সাধারণ মানুষ ফোন করে তাঁদের শারীরিক অসুস্থতার কথা জানাতে পারবেন। সেই টেলি মেডিসিনের সাহা‌য্যকারীরা প্রাথমিক স্তরে কী সুরাহা হতে পারে তা বলে দেবেন রোগীদের, এবং রোগীর অবস্থা বিবেচনা করে তাঁদেরকে চিকিৎসকের কাছেরেফার করবেন তারা। এর জন্য বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতোকোত্তর পড়ুয়াদের নি‌যুক্ত করা হবে বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী।

এছাড়া তিনি জানান, ইতিমধ্যেই রাজ্যে ব্লাড ব্যাঙ্ক বানানো হয়েছে। করা হয়েছে টেলিমেডিসিনের ব্যবস্থা। একটি ফোন নম্বর দেওয়া হয়েছে প্রশাসনের তরফ থেকে – ১৮০০ ৩১৩ ৮৮৮ ২২২। এটি হল টেলি মেডিসিনের নম্বর। ‌যে কোনো রকম চিকিৎসাজনীত সাহা‌য্য পাওয়া ‌যাবে এই নম্বর থেকে। এছাড়া সিনিয়র সিটিজেনদের জন্য সাহা‌য্য তাঁদের বাড়িতে পৌঁছে দেওয়ার প্রস্তাবও দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

No comments:

Post a comment

loading...