Friday, 14 August 2020

যখন অন্য দলের লোকেরা মুখ ফিরিয়েও দেখেনি ,তৃণমূল নেতা নিজেই করোনা আক্রান্তকে বাইকে করে হাসপাতাল নিয়ে গেলেন

ওয়েব ডেস্ক ১৪ই অগাস্ট ২০২০: ঝাড়গ্রামের ঘটনা এটি। সম্প্রতি গ্রামে ফিরে আসা অমল বারিক নামে এক পরিযায়ী শ্রমিক পাঁচ-ছয় দিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন।তাকে হাসপাতালে নেয়ার জন্য কোনও অ্যাম্বুলেন্স পাওয়া যাচ্ছিলো না। এলাকার মানুষও সাহায্য করছিলো না। গোপীবল্লভপুরের তৃণমূল যুব শাখার সভাপতি সত্যকাম পটনায়েক জানান, দলের কর্মীদের কাছে তিনি এই খবর পান।

তিনি বলেন, দু’জন দলীয় কর্মীকে বাইকের ব্যবস্থা করতে বলি এবং ছুটে গিয়ে একটি ফার্মেসি থেকে গিয়ে পিপিই কিট কিনে আনি। সিজুয়া গ্রামে ওই রোগীর বাড়িতে গিয়ে অমলকে গোপীবল্লভপুর সুপারস্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে যাই।চিকিৎসকরা অমল বারিককে পরীক্ষা করে কিছু ওষুধ লিখে দেন এবং তাকে বাড়িতে আইসেলোশনে থাকতে বলেন।

অমলকে হাসপাতালে আনা-নেয়ার একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। সেকথা জানতে পেরে ওই নেতা বলেন, আমি এই মহামারীর মধ্যে জনগণের পাশে দাঁড়াতে চাই। আমি আবারও দরকার হলে একই কাজ করবো। সেই জন্য আমি আরও চারটি পিপিই অর্ডার দিয়েছি।ঝাড়গ্রামের তৃণমূল মুখপাত্র উমা সোরেন বলেন, দলের যুবকর্মীরা মানুষের সহায়তায় সবসময় প্রস্তুত রয়েছেন। কোনও প্রয়োজন হলে মানুষের উচিত আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা, আমরা তাদের পাশে থাকবো।

No comments:

Post a comment

loading...