Wednesday, 16 September 2020

অভিনব দাওয়াইএর সুপারিশ ইমরানের

ওয়েব ডেস্ক ১৬ ই সেপ্টেম্বর ২০২০ : ধর্ষকদের ওষুধ দিয়ে যৌন ক্ষমতা নষ্ট করার প্রস্তাব করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। সম্প্রতি দেশটির লাহোরের হাইওয়েতে নিজের দুই সন্তানের সামনেই গণধর্ষণের শিকার হন এক নারী। এই ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভে ফেটে পড়ে পুরো দেশ।এই ঘটনায় নিজের প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে পাকিস্তানের একটি সংবাদমাধ্যমের কাছে এই মন্তব্য করেন দেশটির এই প্রধানমন্ত্রী। এ সময় ইমরান খান বলেন, ‘জঘন্যতম যৌন অপরাধগুলো ক্ষেত্রে অভিযুক্তদের জনসমক্ষে ফাঁসি দেয়া উচিত। কিন্তু  সেক্ষেত্রে অন্যান্য দেশের সঙ্গে বাণিজ্যিক সম্পর্কের উপরে প্রভাব পড়তে পারে। কারণ ইউরোপীয় ইউনিয়নের মতো অনেক সংগঠনই মৃত্যুদণ্ডের বিরোধী।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমার মতে- রাসায়নিক প্রয়োগ করে অভিযুক্তের যৌন ক্ষমতাই নষ্ট করে দেয়া উচিত। অনেক দেশ এই পথেই হাঁটছে বলে আমি বেশ কয়েকটি জায়গায় পড়েছি। যেভাবে খুনের অভিযোগের ক্ষেত্রে নৃশংসতা বিচার করে শাস্তি দেয়া হয়, সেরকমই ধর্ষণের ক্ষেত্রেও সর্বোচ্চ শাস্তি হিসেবে যৌন ক্ষমতা নষ্ট করা উচিত।’প্রসঙ্গত, গাড়ির জ্বালানি ফুরিয়ে যাওয়ায় হাইওয়ের উপরে দুই সন্তানসহ আটকে পড়েছিলেন ওই নারী। এ সময় তিনি ধর্ষণের শিকার হন। এই ঘটনাকে ঘিরে প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে পাকিস্তানে। কয়েকশো নারী রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ করেছেন।

এমতাবস্তায় রাতে কোনো পুরুষ সঙ্গী ছাড়াই ওই মহিলা কেন একা গাড়ি নিয়ে যাচ্ছিলেন, সেই প্রশ্ন তুলে নির্যাতিতাকেই দোষারোপের চেষ্টা করেন পাকিস্তান পুলিশের এক কর্মকর্তা। এরপরেই জনতা আরো ক্ষোভে ফেটে পড়ে। পরে অবশ্যই ওই কর্মকর্তা এই মন্তব্যের জন্য ক্ষমাও চান।


এ ঘটনায় এক অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।  পাঞ্জাব প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী উসমান বুদজার জানিয়েছেন, অভিযুক্ত ব্যক্তি নিজের দোষ স্বীকার করেছে।

No comments:

Post a comment

loading...