Friday, 4 September 2020

চীন শব্দটাই তাইওয়ান মুছে ফেললো , পড়ুন

ওয়েব ডেস্ক ৪ঠা সেপ্টেম্বর ২০২০ :চীনের সঙ্গে তাইওয়ানের দাপ্তরিক নামের মিল থাকায় বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়। এ কারণে পাসপোর্টের নকশা বদলে ফেলছে তাইওয়ান। আগামী বছরের শুরু থেকে তাদের পাসপোর্টে ইংরেজি হরফে ‘চায়না’ শব্দটা থাকবে না। 


তাইওয়ানের পাসপোর্টের ওপরে বড় করে ‘রিপাবলিক অব চায়না’ লেখা রয়েছে, এটি দেশটির দাপ্তরিক নাম। করোনা মহামারীর সময় পাসপোর্টে লেখা এ নাম নিয়ে স্বশাসিত দ্বীপটির নাগরিকদের অন্য দেশে ঢুকতে বেশ সমস্যা হয়েছিল বলে কর্তৃপক্ষ জানায়। 


চীনের উহান থেকে ভাইরাসটি সংক্রমিত হয় বলে সে সময় চীনা নাগরিকদের বিভিন্ন দেশে প্রবেশে নানা বিধিনিষেধ ছিল।

চীনের উহান থেকে ভাইরাসটি সংক্রমিত হয় বলে সে সময় চীনা নাগরিকদের বিভিন্ন দেশে প্রবেশে নানা বিধিনিষেধ ছিল।

গত বুধবার স্বশাসিত দ্বীপটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী জোসেফ উ বলেন, ‘তাইওয়ানের নাগরিকদের ভুল করে চীনের নাগরিক ভাবা বন্ধ করতেই পাসপোর্টে পরিবর্তন আনা প্রয়োজন হয়ে পড়েছে।’ আগামী বছরের জানুয়ারি থেকে ছাপা হওয়া নতুন পাসপোর্টে ‘রিপাবলিক অব চায়না’ লেখাটি থাকছে না। নিচে অপেক্ষাকৃত ছোট করে থাকা ‘তাইওয়ান’ শব্দ আরও বড় আকারে থাকবে নতুুন পাসপোর্টে। তবে ইংরেজিতে দাপ্তরিক নামটি না থাকলেও চীনা হরফে ‘রিপাবলিক অব চায়না’ লেখাটা আগের মতোই থাকবে। জাতীয় প্রতীকের চারপাশে বৃত্তাকারে ছোট করেও ইংরেজি দাপ্তরিক নামটি থাকবে।


একইভাবে তাইওয়ান তাদের সবচেয়ে বড় ক্যারিয়ার চায়না এয়ারলাইনসের নাম ও নকশা বদলের কথাও বিবেচনা করছে। এ দিকে হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, চেক প্রজাতন্ত্রের সিনেট প্রেসিডেন্ট মিলোস ভিস্টরসিল বৃহস্পতিবার তাইওয়ানের নেতা সাই ইং-ওয়েনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। এই সফরকে চীন ‘আন্তর্জাতিক বিশ্বাসঘাতকতা’ বলে আখ্যায়িত করেছে।



 


No comments:

Post a comment

loading...